• শুক্রবার   ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ||

  • ফাল্গুন ১৩ ১৪২৭

  • || ১৪ রজব ১৪৪২

দৈনিক জামালপুর

জামালপুর জেলা বিএনপির সভাপতি-সম্পাদকের কুশপুত্তলিকা দাহ

দৈনিক জামালপুর

প্রকাশিত: ২৬ জানুয়ারি ২০২১  

অগণতান্ত্রিক কায়দায় দলকে ধ্বংসের প্রতিবাদে এবং মেয়াদ উত্তীর্ণ জেলা কমিটি বাতিলের দাবিতে ঝাড়ু মিছিল শেষে জামালপুর জেলা বিএনপির সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের কুশপুত্তলিকা পুড়িয়েছে বিএনপির বিক্ষুব্ধ নেতা-কর্মীরা। ২৫ জানুয়ারি দুপুরে জেলা বিএনপির একাংশের বিক্ষুব্ধ নেতা-কর্মীরা জেলা বিএনপি ও শহর বিএনপির ব্যানারে এ কর্মসূচির আয়োজন করে।

দলীয় সূত্র জানায়, ২৫ জানুয়ারি বেলা ১২টার দিকে জেলা বিএনপির বর্তমান কমিটির সহ-সভাপতি মো. আমজাদ হোসেনের নেতৃত্বে শহরের সকাল বাজার এলাকা থেকে একটি ঝাড়ু মিছিল বের হয়। মিছিলটি প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে শহরের দয়াময়ী মোড়ে গিয়ে শেষ হয় এবং সেখানে জেলা বিএনপির সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের কুশপুত্তলিকা পোড়ায় বিক্ষুব্ধ নেতা-কর্মীরা।

পরে দয়াময়ী মোড়ে এক সংক্ষিপ্ত প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন জেলা বিএনপির সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক শামীম আহমেদ, জেলা বিএনপির বর্তমান কমিটির সহ-সভাপতি মো. আমজাদ হোসেন, আনিসুর রহমান বিপ্লব, কৃষিবিষয়ক সম্পাদক মাজেদুল ইসলাম সাত্তার, ক্রীড়া সম্পাদক আব্দুল বারেক, জেলা শ্রমিকদলের সাংগঠনিক সম্পাদক মো. আনোয়ার হোসেন শাহীন, শহর বিএনপিনেতা মোশারফ হোসেন খান, জেলা ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি মাহবুবুর রহমান জিলানী প্রমুখ।

সমাবেশে বিক্ষুব্ধ নেতৃবৃন্দ বলেন, জেলা বিএনপির বর্তমান কমিটির মেয়াদ উত্তীর্ণ হয়ে গেছে। ২০১৬ সালের ২৬ নভেম্বর সর্বশেষ জেলা বিএনপির সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছিল জামালপুর শহরের সিংহজানী বহুমুখী উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে। ওইদিন সম্মেলনের প্রধান অতিথি বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর ফরিদুল কবীর তালুকদার শামীমকে সভাপতি ও শাহ মো. ওয়ারেছ আলী মামুনকে সাধারণ সম্পাদক ঘোষণা করে পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠনের নির্দেশ দিয়ে যান। কিন্তু ওই সম্মেলনের দিন থেকে প্রায় আড়াই বছর পর ২০১৯ সালের মার্চ মাসে জেলা বিএনপির পূর্ণাঙ্গ কমিটি অনুমোদন দেয় কেন্দ্রীয় কমিটি। তবে ফরিদুল কবীর তালুকদার শামীম ও শাহ মো. ওয়ারেছ আলী মামুন মনগড়াভাবে তাদের নিজের ভক্ত অনুসারী ও আত্মীয়স্বজনদের বিএনপির জেলা কমিটিতে স্থান করে দেওয়ায় অনেক ত্যাগী নেতা-কর্মীরা পদবঞ্চিত হন।

বিএনপির জেলা কমিটির সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদককে স্বৈরাচার আখ্যা দিয়ে বিক্ষুব্ধ নেতারা বলেন, ফরিদুল কবীর তালুকদার শামীম ও শাহ মো. ওয়ারেছ আলী মামুন অগণতান্ত্রিক কায়দায় দলকে ধ্বংস করছেন। জেলা বিএনপির মেয়াদ উত্তীর্ণ কমিটি বাতিল করে সম্মেলনের মাধ্যমে নতুন কমিটি গঠনের দাবি জানান বক্তারা।

এদিকে জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক শাহ মো. ওয়ারেছ আলী মামুন এসব অভিযোগ প্রসঙ্গে এ প্রতিবেদককে বলেন, জেলা বিএনপির কমিটির মেয়াদ উত্তীর্ণ হয়নি। দল সঠিকভাবেই চলছে। কিছু সমস্যা বা দাবি দাওয়া দলীয় ফোরামেই আলোচনা করতে পারে তারা। রাস্তায় নেমে দলের বিরুদ্ধে আন্দোলন করা কোন শিষ্টাচারের মধ্যে পড়ে না। জেলা বিএনপির সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক শামীম আহমেদ বরাবরই আওয়ামী লীগের এজেন্ডা বাস্তবায়নের জন্য দলের মধ্যে বিশৃংখলা সৃষ্টি করে আসছেন বলেও তিনি অভিযোগ করেন।

দৈনিক জামালপুর
দৈনিক জামালপুর