• রোববার   ২৪ জানুয়ারি ২০২১ ||

  • মাঘ ১১ ১৪২৭

  • || ১০ জমাদিউস সানি ১৪৪২

দৈনিক জামালপুর
সর্বশেষ:
ভুয়াপুর ইবরাহীম খাঁ সরকারি কলেজের উদ্যোগে মাস্ক বিতরণ ঘাটাইলের সেই সন্ধ্যা রানী পেলেন প্রধানমন্ত্রী’র উপহার সানন্দবাড়ী বাজারে আগুন, ক্ষতি প্রায় ১২ লক্ষ টাকার মালামাল টাঙ্গাইলের ১০ পৌরসভার উন্নয়নে প্রায় তিন শত কোটি টাকার প্রকল্প প্রতিরক্ষা খাতের পেনশন ও ফান্ড ব্যবস্থাপনায় নতুন কার্যালয় উদ্বোধন খাগড়াছড়িতে প্রিজমের পুতুল তৈরী প্রশিক্ষণ ঘাটাইলে বাংলাদেশ মানবাধিকার কমিশন কমিটির শপথ অনুষ্ঠান কুড়িগ্রাম পৌরসভার নবনির্বাচিত মেয়র ও কাউন্সিলরদের দায়িত্ব গ্রহণ জামালপুরে শীতার্ত মানুষের মাঝে শীত বস্ত্র বিতরন ৩৫০ প্রজাতির ফুল-ফলের গাছ নিয়ে বকশীগঞ্জ ইউএনও’র ছাঁদ বাগান

বকশীগঞ্জ সীমান্তে আবারও হাতির তান্ডব

দৈনিক জামালপুর

প্রকাশিত: ১৭ ডিসেম্বর ২০২০  

জামালপুরের বকশীগঞ্জ উপজেলার সীমান্তবর্তী ইউনিয়ন ধানুয়া কামালপুরের সাতানিপাড়া ও  বালুরচর এলাকায় ভয়াবহ হাতির তান্ডব শুরু করেছে।

 

১৭ ডিসেম্বর বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৬ টা থেকে এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত প্রায় ৩ একর জমির সরিষা ক্ষেত ধ্বংস করেছে হাতির দল। এ পর্যন্ত সাতানিপাড়া ও বালুরচর গ্রামের কয়েকজন কৃষকের সরিষা ক্ষেতে তান্ডব চালায়।

 

স্থানীয় বাসিন্দা জুবায়ের হোসেন, মজনু মিয়া, আপেল, আব্দুর রহিম, সোলায়মানসহ অনেকেই জানান, সন্ধ্যা নামার সাথে সাথে প্রায় ৬০/৭০টি হাতির পালটি সীমান্তবর্তী কাটাতারের গেট দিয়ে বাংলাদেশের অভ্যন্তরের প্রবেশ করিয়ে গেটগুলি বন্ধ করে দেয় ভারতীয় সীমান্ত রক্ষী বাহিনী (বিএসএফ)। এ সময় উচ্চ আলো সম্পন্ন বিদ্যুতিক বাতি জ্বালিয়ে তারা ।  পরে সারারাত তন্ডব চালিয়ে ভোর বেলায় আবার সেই গেটগুলিখুলে দিলে আবার ভারতে প্রবেশ করে হাতির দল। গত ‍দুই দিন যাবত এই হাতির তান্ডব অব্যাহত রয়েছে বলে জানায় স্থানীয় অধিবাসীরা।

 

প্রতিবছর আমন মৌসুমের শেষ দিকে অর্থাৎ অক্টোবর মাসের শেষের দিকে হাতির উপদ্রুপ বেশি হয়। এসময় আমন মৌসুমের পাকা ধান ধ্বংস করে। এবার মৌসুম শেষ হলে হাতির এসেছে। জমির ধান খেয়ে হাতি গুলো চলে যায়। কিন্তু এবারে মাঠে ধান না থাকায় সীমান্তবর্তী মানুষগুলি আরও বেশি চিন্তায় রয়েছে।

 

খাবারের সন্ধানে একেবারে সমতল ভুমির লোকালয়ের দিকে এগিয়ে আসছে হাতির দল।

 

এদিকের জামালপুর জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে জেনারেটর দেওয়া হলেও তেলের অভাবে সেগুলো বন্ধ হয়ে আছে।

 

এ বিষয়ে বকশীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শফিকুল ইসলাম  জানান, হাতির কারণে আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিত যেন অবনতি না হয়, সে কারণে পুলিশ পাঠানো হয়েছে।

 

জামালপুর জেলা প্রশাসক (ডিসি) এনামুল হক জানান, হাতির উপদ্রুপ নিরসনে কমিশনার পর্যায়ের বৈঠকে বিষয়টি উত্থাপন করা হয়েছিল। আশাকরি দুই দেশের যৌথ উদ্যোগে এ সমস্যা সমাধান হবে।

 

প্রসঙ্গত, বন্যহাতির উপদ্রবে শুধু জামালপুরের বকশীগঞ্জেই বছরে গড়ে আড়াইশো থেকে তিনশো হেক্টর জমির ফসল নষ্ট হয়। আর গেল পাঁচ বছরে দুই উপজেলায় হাতির আক্রমণে মারা গেছেন ১৩ জন। আহত ও পঙ্গত্ব বরণ করেছে ২ শাতাধিক।

দৈনিক জামালপুর
দৈনিক জামালপুর