• শুক্রবার   ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ||

  • ফাল্গুন ১৩ ১৪২৭

  • || ১৪ রজব ১৪৪২

দৈনিক জামালপুর

রৌমারীতে বাড়ছে শিশু ডায়রিয়া ও নিউমোনিয়া

দৈনিক জামালপুর

প্রকাশিত: ২৬ জানুয়ারি ২০২১  

কুড়িগ্রামের রৌমারী উপজেলায় ঘনকুয়াশায় ও ঠান্ডার কারনে বাড়ছে শিশু ডায়রিয়া। গত দুই দিনে উপজেলার ৬টি ইউনিয়নের বিভিন্ন এলাকা থেকে ডায়রিয়া ও নিউমোনিয়া রোগে সাফির হোসেন (৮) মাস, মোহাম্মদ আলী (১), মিরাজুল ইসলাম (২) ও রিয়ান হোসেনসহ ১৫ জন শিশু হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে। রোটা ভাইরাসের কারনে এ রোগের সৃষ্টি হতে পারে বলে চিকিৎসকরা ধারনা করছেন। অপর দিকে ঠান্ডা ও ঘনকুয়াশায় কর্মজীবি মানুষ পড়েছে দূর্ভোগে । কনকনে হারকাপানো শীতে আগুনের তাপ নিচ্ছে মানুষ। সূর্য্যের আলো দেখা যাচ্ছে না। এতে বৃদ্ধ ও শিশুরা নানা ধরনের রোগে আক্রান্ত হচ্ছে। উপজেলার খেটে খাওয়া মানুষরা পড়েছে চরম দূর্ভোগে। তাদের কাজকর্ম নেই। শীতের কাপড়ের জন্য কষ্টে দিনাতিপাত করছে অসহায় দরিদ্র পরিবারগুলো।

উপজেলার বামনের চর গ্রামের সাইদুর রহমান বলেন, দুইদিন থেকে ঠান্ডা ও ঘন কুয়াশায় ঘর থেকে বের হতে পারছিনা। কাজও বন্ধ রয়েছে। ঘনকুয়াশা যদি অব্যাহত থাকে তাহলে আরো বিপদ হবে।

দিন মুজুর ব্যাপারীপাড়া গ্রামের, শহিদুর রহমান জানান, অতিরিক্ত ঠান্ডার জন্য কাজ করতে পারি না। ঘরে খাবার না থাকায় অন্যের কাছে ধার নিয়ে আপাতত চলছি।

রৌমারী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স কর্মকর্তা (ভার:) ডা. নাজমুল হুদা বলেন, শীত ও অতিরিক্ত ঠান্ডাজনিত কারনে শিশুরা ডায়রিয়া রোগে আক্রান্ত হচ্ছে। ইতোমধ্যে গত দুইদিনে ১৫ জন শিশু ভর্তি হয়েছে। তবে কোন আশঙ্কা নেই।

উপজেলা প্রকল্প বাস্তাবায়ন কর্মকর্তা আজিজুর রহমান জানান, বরাদ্দকৃত শীতবস্ত্র বিতরন করা শেষ হয়েছে। আবারো নতুন করে ঠান্ডা পড়ায় খেটে খাওয়া মানুষ বিপাকে পড়েছে। বিষয়টি উদ্ধর্তন কর্তপক্ষকে অবগত করা হয়েছে। 

দৈনিক জামালপুর
দৈনিক জামালপুর