• রোববার   ২৪ অক্টোবর ২০২১ ||

  • কার্তিক ৮ ১৪২৮

  • || ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

দৈনিক জামালপুর

মাছ চাষের বিপ্লব ঘটানোর অপার সম্ভাবনা জামালপুর

দৈনিক জামালপুর

প্রকাশিত: ১৩ অক্টোবর ২০২১  

মাছ চাষের বিপ্লব ঘটাতে চায় জামালপুর জেলা মৎস্য বিভাগ। আর এই মৎস্য চাষের বিপ্লবের ভূমিকা রাখবে মেলান্দহের বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ^বিদ্যালয়ের মৎস্য বিভাগ। শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা। ১০ অক্টোবর জামালপুর জেলা মৎস্য ভবন সম্মেলন কক্ষে বিশ^বিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের সাথে অভিজ্ঞতা ও মতবিনিময়কালে মৎস্য কর্মকর্তা ড.কায়সার মুহাম্মদ মঈনুল হাসান। জেলা মৎস্য কর্মকর্তা এ বিষয়ে ব্যাখ্যা প্রদানকালে তিনি জানান-নতুন নতুন জাতের মাছ চাষের প্রযুক্তি উদ্ভাবন, খাঁচায় মাছ চাষ, মাছের গুনগত মানোন্নয়ন, নিরাপদ-স্বাস্থ্যসম্মত ও উন্নত মাছের জাত উদ্ভাবন, চরাঞ্চলের জীবনমান উন্নয়নসহ বহুবিধ পদক্ষেপে এই বিশ^বিদ্যালয় গবেষণা দিয়ে চাহিদা পূরণ করতে পারবে। বাস্তবতার আলোকেই এই বিশ^বিদ্যালয় নেতৃত্বের দিক দিয়ে প্রথম সারিতে থাকবে।

মৎস্য কর্মকর্তার বক্তব্যের প্রতিউত্তরে বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ^বিদ্যালয়ের মৎস্য বিভাগের সহকারি অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ সাদীকুর রহমান ইমন এবং ফিশারিজ বিভাগের গবেষক শিক্ষার্থী এস.এম. আল ফাহাদসহ অন্যান্যরা অনুভূতি ব্যক্ত করে বলেন, ইতোমধ্যেই মেলান্দহ রিপোর্টার্স ইউনিটি আয়োজিত দেশীয় মাছ রক্ষা, চরাঞ্চলের জীবনমান উন্নয়ন, নদী ও প্রকৃতি সুরক্ষা শীর্ষক আলোচনা সভায় এই বিশ^বিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা স্বতস্ফুর্ত অংশ গ্রহণ করেন। 

এতেই শেষ নয়, শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা চরাঞ্চলের মানুষের সুখ-দু:খসহ তাদের চাহিদা পূরণ এবং চরাঞ্চলের মাটি ও প্রকৃতির সহনশীল জাতের ফসল উদ্ভাবনের উপর গুরুত্বারোপ করার দাবিটি অত্যন্ত গুরুত্বের সাথে আলোকপাত করা হয়। এ ছাড়াও বিশ^বিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের সমন্বয়ে ওয়াটার কোয়ালিটি ম্যানেজমেন্ট কোর্সেরও অভিজ্ঞতা বিনিময় সফর সম্পন্নে ভিসি ড. সৈয়দ শামসুদ্দিন আহমেদ, রেজিস্ট্রার খন্দকার হামিদুর রহমানের প্রতি কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করেন। সভায় জেলা মৎস্য বীজ উৎপাদন খামার ব্যবস্থাপক কৃষিবিদ মুখলেসুর রহমান, সহকারি পরিচালক মিজানুর রহমান, বিশ^বিদ্যালয়ের অন্যান্য শিক্ষক-শিক্ষার্থীরাও উপস্থিত ছিলেন।

স্থানীয়ভাবে মাছের ঘাটতি পূরণে বেশ ক’টি প্রস্তাবনার কথা বলা হয়। এগুলো হচ্ছে, শুস্ক মৌসুমে পুকুর বা জলাশয়ে পানির সমস্যা নিরসন, মাছ উৎপাদনে ঘাটতি পূরণ, বন্যা কবলিত এলাকায় মাছের সুরক্ষা নিশ্চিত করণ, পোনা মাছের গুণগত মান নিয়ন্ত্রণ, ব্রহ্মপুত্র ও যমুনাসহ নদ-নদীতে পর্যাপ্ত খাঁচায় মাছ চাষের উপর গুরুত্ব দেয়া।

দৈনিক জামালপুর
দৈনিক জামালপুর